Tuesday , April 24 2018
Breaking News
Home / লাইফ স্টাইল / হাঁচির সময় নাক-মুখ চেপে ধরছেন? মারাত্মক বিপদ!

হাঁচির সময় নাক-মুখ চেপে ধরছেন? মারাত্মক বিপদ!

ঠান্ডা লাগলে কিংবা ধুলোবালি নাকে ঢুকলে হাঁচি কম বেশি সবারই হয়। আর হাঁচি সময় অনেকেই হাত দিয়ে নাক, মুখ চেপে ধরেন। এতে আপনার মারাত্মক বিপদ হতে পারে।

জেনে নিন কি মারাত্মক বিপদ হতে পারে!

ভারতীয় এক সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, সম্প্রতি এক গবেষণায় বলা হয়েছে হাঁচি দেওয়ার সময়ে নাক ও মুখ চেপে ধরলে আপনার গলার ভয়াবহ ক্ষতি হতে পারে। এমনকি, এতে করে আপনার কানের পর্দা পর্যন্ত ফেটে যাওয়ারও সম্ভাবনা থাকে।

গবেষকরদের দাবি, হাঁচির সময়ে নাক, মুখ হাত দিয়ে চেপে ধরলে দুই ফুসফুসের মধ্যে বাতাস আটকে গিয়ে বড় রকমের বিপদ ঘটতে পারে। এছাড়াও রক্তের কোনো কণা মস্তিষ্কে গিয়ে ধাক্কা দিতে পারে।

এমনই একটি ঘটনা ‘বিএমজে কেস রিপোর্ট’-এ প্রকাশিত হয়েছিল। সেখানে দেখা যায়, এক ব্যক্তি হাঁচির সময়ে নাক, মুখ চেপে ধরেছিলেন বলে তার গলার ভেতর এতোটাই আঘাত লাগে যার ফলে সে বেশ কয়েকদিন ঠিক মতো কথা বলতে পারেনি। এ সময় গলায় অধিক ব্যাথা কারণে খাবার ঠিক করে গিলতে খেতে পারছিলেন না। চিকিৎসকরা জানান, ওই ব্যক্তির কণ্ঠনালীর পিছন দিক় মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ফলে সে ঠিক মতো খাবার খেতে পারছে না ব্যাথা কারণে।

ওই ব্যক্তি জানান, হাঁচি দেওয়ার সময় নাক ও মুখ জোর করে চেপে ধরে রেখেছিলেন তিনি। আর এতে করে সঙ্গে সঙ্গেই ঘাড়ে আঘাত লেগেছিল তার। তারপরেই শুরু হয় গলায় ব্যাথা। এমন কি ওই সময় গলা দিয়ে স্পষ্ট আওয়াজ পর্যন্ত বন্ধ হয়ে যায়।

তার এই অবস্থার কারণে হাসপাতালে পর্যন্ত ভর্তি হতে হয়। চিকিৎসকরা তার বুকের ভেতর থেকে মটমট শব্দ শুনতে পান। এই শব্দটি প্রথমে তার ঘাড়ের কাছ থেকে আসছিল। পরে তা পাঁজর পর্যন্ত পৌঁছায়।

চিকিৎসকরা আরো জানান, বুকের ভেতরে পেশিতে বাতাস আটকে থাকার ফলেই এই আওয়াজ আসছে। এই ব্যক্তিকে এ ঘটনায় ৭ দিন তাকে হাসপাতালে রেখে নলের মাধ্যমে খাওয়ানো হয়।

তাই এই ধরনের ঘটনা এড়াতে চিকিৎসকরা হাঁচি দেওয়ার সময়ে নাক ও মুখ চেপে না ধারার পরামর্শ দিয়েছেন।

Loading...